শুক্রবার, ১২ Jul ২০২৪, ০১:৫০ পূর্বাহ্ন

        English
শিরোনাম :
চট্টগ্রামস্থ ছাগলনাইয়া সমিতির আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল বিশেষ অভিযানে ৬ গ্যাংয়ের ৩৩ জন আটক, দেশী অস্ত্র উদ্ধার ভালো আছেন খালেদা জিয়া ঈদকে ঘিরে জাল নোট গছিয়ে দিত ওরা কুতুব‌দিয়ায় নতুন জামা পেল ১৩৫ এতিম ছাত্র-ছাত্রী মানিকছড়িতে গণ ইফতার মাহফিল সীতাকুণ্ডে লরি চাপায় পথচারী যুবক নিহত সীতাকুণ্ডে পানিতে পড়ে শিশুর মৃত্যু রামগড়ে প্রশিক্ষণার্থীদের মাঝে বিজিবির পুরস্কার ও সনদ বিতরন লাইসেন্স বিহীন ফিলিং স্টেশন স্থাপন করে কার্ভাড ভ্যানে চলছে অবৈধ গ্যাস বিক্রি কাপ্তাই ব্লাড ব্যাংকের উদ্যোগে জনসচেতনতামূলক বিশেষ ক্যাম্পেইন জিম্মি নাবিকদের উদ্ধারে জাহাজের মালিকপক্ষের নতুন ঘোষণা
লামা-আলীকদমে হেল্থ এসিস্ট্যান্ট এসোসিয়েশনের ৪ দফা দাবিতে কর্ম বিরতি শুরু

লামা-আলীকদমে হেল্থ এসিস্ট্যান্ট এসোসিয়েশনের ৪ দফা দাবিতে কর্ম বিরতি শুরু

নিজস্ব প্রতিনিধি, লামাঃ সারা দেশের ন্যায় বান্দরবানের লামা উপজেলায়ও চার দফা দাবি বাস্তবায়নের লক্ষ্যে কর্ম বিরতি পালন করছে বাংলাদেশ হেল্থ এসিস্ট্যান্ট এসোসিয়েশন। সোমবার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স প্রাঙ্গনে স্বাস্থ্য সহকারীরা এ কর্ম বিরতি কর্মসূচী পালন শুরু করে।

এ সময় দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত কর্ম বিরতি চলবে বলেও ঘোষণা দেন তারা। দাবিগুলো হলো- বেতন স্কেলসহ টেকনিক্যাল পদের মর্যাদা, মূল বেতনের ৩০ শতাংশ মাঠ-ভ্রমণ ভাতা, ঝুঁকি ভাতা, প্রতি ৬ হাজার জনসংখ্যা বিপরীতে একজন স্বাস্থ্য সহকারী নিয়োগ দান ও ১০শতাংশ পোষ্য কৌটা প্রবর্তন করা। কর্মবিরতিতে হেল্থ এসিস্ট্যান্ট এসোসিয়েশন’র লামা শাখার সভাপতি মুসলেম উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক ফখরুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক মো. শহীদুল ইসলাম, স্বাস্থ্য সহকারী উশাইমং মার্মা, ফিলিপ মুরুং, শাহীনা বেগম, দিলদার বেগম, রাহনুমা বেগম, শেলী বড়ুয়া, আনু মার্মা প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন।

হেল্থ এসিস্ট্যান্ট এসোসিয়েশন এর লামা শাখার সভাপতি মুসলেম উদ্দিন ও সাধারণ সম্পাদক ফখরুল ইসলাম জানান, স্বাস্থ্য সহকারীরা শিশু ও মাতৃমৃত্যু হ্রাস, যক্ষ্মা, ধনুষ্টংকার, ডায়রিয়া, ম্যালেরিয়ার নিয়ন্ত্রণ, সংক্রামক ও অসংক্রামক ব্যাধি নিয়ন্ত্রণে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে।

এছাড়া গুটিবসন্ত, পোলিও নির্মূলে তথা বাংলাদেশ বিশ্বব্যাপী সুনাম অর্জন করেছে। তাদের ইপিআই কার্যক্রমের ফলে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার ১২টি দেশের মধ্যে বাংলাদেশ চ্যাম্পিয়ন এবং বিশ্ব রোল মডেল হয়েছে। এসব যুক্তিক বিবেচনায় উপস্থাপিত চার দফা দাবিগুলো আমরা পাওয়ার দাবি রাখি। তারা আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ১৯৯৮ সালের ৬ ডিসেম্বর স্বাস্থ্য সহকারীদের এক মহা সমাবেশে টেকনিক্যাল পদমর্যাদাসহ বেতন বৈষম্য নিরসনের ঘোষণা দিয়েছিলেন।

কিন্তু স্বাস্থ্য অধিদপ্তর, অর্থ, জনপ্রশাসন ও স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধির সমন্বয়ে গঠিত উচ্চ পর্যায়ের একাধিক কমিটির অনূকূল সিদ্ধান্ত থাকা সত্ত্বেও আদৌ তা বাস্তবায়ন হয়নি। তাই দাবি পূরণ না হওয়া পর্যন্ত ১ জানুয়ারি থেকে ইপিআই কার্যক্রম সহ সকল কার্যক্রম বন্ধ থাকবে।

এদিকে একই দিন আলীকদম উপজেলায়ও চার দফা দাবী বাস্তবায়নের দাবীতে কর্ম বিরতি কর্মসূচী পালন শুরু করে হেল্থ এসিস্ট্যান্ট এসোসিয়েশন। এতে উপজেলার সকল স্বাস্থ্য সহকারীগন অংশ গ্রহণ করেন।

Please Share This Post in Your Social Media

Powered by : Oline IT