বুধবার, ২৪ Jul ২০২৪, ০৮:৩৫ অপরাহ্ন

        English
শিরোনাম :
চট্টগ্রামস্থ ছাগলনাইয়া সমিতির আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল বিশেষ অভিযানে ৬ গ্যাংয়ের ৩৩ জন আটক, দেশী অস্ত্র উদ্ধার ভালো আছেন খালেদা জিয়া ঈদকে ঘিরে জাল নোট গছিয়ে দিত ওরা কুতুব‌দিয়ায় নতুন জামা পেল ১৩৫ এতিম ছাত্র-ছাত্রী মানিকছড়িতে গণ ইফতার মাহফিল সীতাকুণ্ডে লরি চাপায় পথচারী যুবক নিহত সীতাকুণ্ডে পানিতে পড়ে শিশুর মৃত্যু রামগড়ে প্রশিক্ষণার্থীদের মাঝে বিজিবির পুরস্কার ও সনদ বিতরন লাইসেন্স বিহীন ফিলিং স্টেশন স্থাপন করে কার্ভাড ভ্যানে চলছে অবৈধ গ্যাস বিক্রি কাপ্তাই ব্লাড ব্যাংকের উদ্যোগে জনসচেতনতামূলক বিশেষ ক্যাম্পেইন জিম্মি নাবিকদের উদ্ধারে জাহাজের মালিকপক্ষের নতুন ঘোষণা
গাজায় ইসরায়েলি হামলায় নিহতের সংখ্যা ছাড়াল ৩১ হাজার

গাজায় ইসরায়েলি হামলায় নিহতের সংখ্যা ছাড়াল ৩১ হাজার

গাজায় ইসরায়েলি হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৩১ হাজার ছাড়িয়েছে। গত ৭ অক্টোবর থেকে শুরু হওয়া ইসরায়েলি আগ্রাসনে আহত হয়েছে আরও অন্তত ৭২ হাজার ফিলিস্তিনি। গতকাল রোববার রাতে গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানিয়েছে বার্তা সংস্থা এএফপি এ তথ্য জানিয়েছে। 

গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, এই নিয়মিত আপডেট প্রকাশের আগের ২৪ ঘণ্টায় ইসরায়েলি হামলায় নিহত হয়েছে ৮৫ জন ফিলিস্তিন। সব মিলিয়ে গাজায় ইসরায়েলের ৫ মাস ৪ দিনের আগ্রাসনে নিহত ফিলিস্তিনি সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩১ হাজার ৪৫ জনে। এই সময়ে ইসরায়েলি হামলায় আহত হয়েছে ৭২ হাজার ৬৫৪ জন। 

এদিকে, ইসরায়েলি হামলায় ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছে গাজায় অবস্থিত ফিলিস্তিনি শিশুদের জন্য ত্রাণ তহবিলের (পিসিআরএফ) সর্বশেষ কার্যালয়। এক্স প্ল্যাটফর্মে শেয়ার করা এক টুইটে সংস্থাটি পোস্টে কার্যালয় ভবনের ধ্বংসস্তূপের ছবি প্রকাশ করে বলেছে, ‘এই বোমা হামলায় কেউ নিহত বা গুরুতর আহত হয়নি।’ এর আগেও ইসরায়েলি বিমান হামলায় আরও দুটি কার্যালয় ধ্বংস হয়ে গেছে। 
 
সংবাদমাধ্যম আল জাজিরার প্রতিবেদনে বলা হয়, সুবিধাবঞ্চিত ফিলিস্তিনি শিশুদের চিকিৎসা দেওয়ার উদ্দেশ্যে ১৯৯১ সালে যুক্তরাষ্ট্রে মানবতাবাদীরা পিসিআরএফ প্রতিষ্ঠা করে। সংস্থাটি জানায়, তারা ওই সব আহত ও অসুস্থ শিশুদের সেবা দিয়ে থাকে, যারা স্থানীয় চিকিৎসাব্যবস্থা থেকে বঞ্চিত। 

এর আগে গত শুক্রবার ইসরায়েলি হামলায় নিহত হন মার্কিন এক দাতব্য সংস্থার ফিলিস্তিনি কর্মী মুসা শাওয়া। গাজার দেইর আল-বালাহে তাঁর আশ্রয়কেন্দ্রে থাকার সময়ই তিনি নিহত হন বলে জানায় বেসরকারি সংস্থা আনেরা। 

ফিলিস্তিন, জর্ডান ও লেবাননের শরণার্থীদের সহযোগিতা করে থাকে আনেরা। প্রতিষ্ঠানটি জানায়, গত শুক্রবার মুসা শাওয়াকে হত্যা করা হয়। যদিও ‘হামলার মাত্র কয়েক দিন আগেসহ বেশ কয়েকবার তাঁকে রক্ষার উদ্দেশ্যে তাঁর আশ্রয়ের স্থানাঙ্ক সরবরাহ করা হয়েছিল।’ সংস্থাটি আরও বলেছে, গাজা যুদ্ধে নিহত মার্কিন মানবিক ত্রাণ সংস্থার পঞ্চম সদস্য শাওয়া।

Please Share This Post in Your Social Media

Powered by : Oline IT